‘অন্তঃসত্ত্বা’ খবর জানার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই সন্তান প্রসব


‘অন্তঃসত্ত্বা’ খবর জানার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই সন্তান প্রসব


চিকিৎসকের কাছ থেকে ‘অন্তঃসত্ত্বা’ হওয়ার খবর জানার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই সন্তান প্রসব করেছেন ২৩ বছর বয়সি পিটন স্টোভার।

আমেরিকার বাসিন্দা এই তরুণী পেশায় শিক্ষিকা। দু’দিন আগে অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর জানতে পেরেছিলেন। ৩ দিনের মাথায় সন্তানের জন্ম দিলেন তিনি।

বেশ কয়েক দিন থেকেই তিনি শারীরিক ভাবে দুর্বল বোধ করছিলেন। প্রথম দিকে তেমন পাত্তা দেননি। শারীরিক এই ক্লান্তির কারণ হিসাবে কাজের চাপকেই ধরে নিয়েছিলেন। পিটন স্বামীকেও তার অসুস্থতার ব্যাপারে কিছু জানাননি।

আরও পড়ুনঃ মালয়েশিয়ায় ইন্দোনেশিয়াগামী বিমানের জরুরি অবতরণের রহস্য (ভিডিও)

নিজের মধ্যে কিছু কিছু বাহ্যিক পরিবর্তন লক্ষ করেন তিনি। পা, পেট ফুলতে দেখে খানিক ভয় পেয়ে চিকিৎসকের কাছে যান ওই দম্পতি। পরে চিকিৎসক পেটনকে পরীক্ষা করে বলেন, যে তিনি ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা। এই কথা শুনে স্বামী-স্ত্রী দু’জনই অবাক হয়ে যান।

বিষয়টি পুরোপুরি নিশ্চিত হতে পিটনের আল্ট্রাসোনোগ্রাফি করা হয়। দূর হয় সন্দেহ।

চিকিৎসকরা জানান, পিটনের কিডনি এবং লিভার ঠিকঠাক কাজ করছে না। অস্ত্রোপচার না করলে তাকে বাঁচানো সম্ভব হবে না। অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর জানার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে পুত্রসন্তানের জন্ম দেন পিটন। সময়ের ১০ সপ্তাহ আগে পৃথিবীতে আসে ১ কেজি ৮০০ ওজনের ‘কাশ’।

চিকিৎসকদের ধারণা পিটন ‘প্রিক্ল্যাম্পশিয়া’র শিকার। সাধারণত অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার ২০ সপ্তাহে এই রকম সমস্যা দেখা যায়। গর্ভস্থ শিশুর বিকাশও ঠিক মতো হয় না। ফলে পেটের আকৃতি খুব বড় হয় না। উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা থাকলে ‘প্রিক্ল্যাপশিয়া’র আশঙ্কা অনেক বেশি থাকে। এমনটাই ঘটেছে পিটনের সঙ্গে।