অপহরণকারীরা নামিয়ে দিয়ে গেছে সোহেল তাজের ভাগনেকে


Shohel taz

ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলার বটতলা বাজার এলাকায় আজ (বৃহস্পতিবার) ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে একটা গাড়ি থেকে অপহৃত সৈয়দ ইফতেখার আলম সৌরভকে নামিয়ে দিয়ে যায় অপহরণকারীরা।

সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তানজিম আহমেদ সোহেল তাজের অপহৃত ভাগনে সৌরভকে সেখান থেকে উদ্ধার করে পুলিশ।

আজ সকাল ছয়টায় ফেসবুক লাইভে এসে সোহেল তাজ জানান, যে জায়গায় তার ভাগনেকে ফেলে রাখা হয়েছিল, সেখান থেকে পুলিশ সুপার তাকে নিয়ে এসেছেন।

গত ৯ জুন চট্টগ্রাম থেকে অপহৃত হন সোহেল তাজের ভাগনে সৌরভ। এর আগে গত ১৬ মে বনানীর একটি বাসা থেকে র‍্যাব-১ পরিচয়ে সৌরভকে একদল লোক তুলে নিয়ে যায়।

ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে গত মঙ্গলবার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সৌরভের বাবা-মা জানান, গত ১৬ মে বনানীর একটি বাসা থেকে র‍্যাব-১ পরিচয়ে সৌরভকে একদল লোক তুলে নিয়ে যায়। তারাই দ্বিতীয় দফা অপহরণের সঙ্গে জড়িত। অপহরণের প্রথম থেকে র‍্যাব-পুলিশ ছাড়াও তারা দুটি গোয়েন্দা সংস্থার যুক্ত থাকার কথা বলছেন।

তাদের অভিযোগ, সৌরভের ব্যক্তিগত একটি সম্পর্কের জের ধরে তাকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়।

এদিকে গতকাল বুধবার দুপুরের দিকে ফেসবুক লাইভে সোহেল তাজ বলেন, মঙ্গলবার রাত ২টা ২০ মিনিটে সৈয়দ ইফতেখার আলম সৌরভের ফোন নম্বর থেকে তার মায়ের নম্বরে ফোন এসেছিল। লাইভে তার সঙ্গে ছিলেন সৌরভের মা সৈয়দা ইয়াসমিন আরজুমান ও বাবা মো. ইদ্রিস আলী।

সৌরভের বাবা-মা বলেন, রাত ২ টা ২০ মিনিটে হোয়াটসঅ্যাপ থেকে সৌরভের মা ইয়াসমিনের নম্বরে ফোন আসে। কিন্তু অন্য প্রান্ত থেকে কেউ কথা বলেনি।