বাংলাদেশির সততায় মুগ্ধ নিউইয়র্ক



রাজু আহমেদ। তিন বছর আগে আমেরিকায় যান। পেশায় ক্যাবচালক। রাজু আহমেদের বাড়ি সিলেটের বিয়ানীবাজার উপজেলায়।

গত আগস্টে ম্যানহাটনের লোরেন নামে এক নারী যাত্রীকে তার গাড়িতে ওঠেন। একপর্যায়ে গাড়িতে বসেই লোরেন রাজুকে তার হিরের আংটি হারিয়ে ফেলার কথা জানান। গাড়িতে তন্নতন্ন করে খুঁজেও দাদির দেয়া আংটির কোনো খোঁজ পাননি লোরেন। সেসময় লোরেনের ফোন নম্বর রেখেছিলেন রাজু। এরপর পেরিয়ে গেছে অনেক দিন।

সম্প্রতি রাজু আহমেদ তার গাড়িতে বড় ধরনের মেরামতের কাজ করান। গাড়ির কারপেটেসহ বেশ কিছু জিনিস পরিবর্তন করেন। আর তা করতে গিয়েই পেয়ে যান লোরেনের সেই হিরের আংটি। ছয় মাস আগে যাত্রী লোরেনের ফেলে যাওয়া দাদির স্নেহ ও ভালোবাসার উপহার সেই আংটি নিজের গাড়িতেই খুঁজে পান রাজু।

এরপর খুঁজে বের করেন ম্যানহাটন নিবাসী লোরেনকে। বুধবার ম্যানহাটনের একটি রেস্তোরাঁয় রাজু আহমেদ সেই হিরের আংটিটি লোরেনের হাতে তুলে দেন। হিরের আংটিটির বাজারমূল্য ২০ হাজার ডলারের বেশি। মুগ্ধ লোরেন রাজুর সততার প্রশংসা করে ভালোবাসার মহা মূল্যবান হিরের আংটি ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য রাজুর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

এবিষয়ে রাজু আহমেদ বলেন, ‘আমার পারিবারিক এবং ধর্মীয় শিক্ষা থেকেই এমনটি করেছি। আমার যাত্রী খুশি হয়েছেন দেখে আমি নিজেও খুশি।’