বৃষ্টিপাতেও নিভে না যে আগুন!



আজারবাইজানের অ্যাবশেরন উপদ্বীপের একটি জায়গায় দশ মিটার জায়গাজুড়ে অবিরাম জ্বলছে আগুন। যে আগুন নিভে না। চার হাজার বছর ধরে একাধারে জ্বলছে এই আগুন।

আজারবাইজানের শিখা অনির্বাণ নিয়ে বলছিলেন স্থানীয় নারী অ্যালিয়েভা রাহিলা। অ্যাবশেরন উপদ্বীপে পর্যটক গাইডের কাজ করেন আলিয়েভা রাহিলা।

তিনি জানিয়েছেন তার অভিজ্ঞতার কথা। তিনি বলেছেন, চার হাজার বছরেও এই আগুন কখনো নেভেনি। এমনকি ঝুম বৃষ্টি, বরফ কিংবা ঝড়োবাতাস বয়ে গেলেও জ্বলা থামে না বলে জানিয়েছেন তিনি।

তিনি আরো জানান, সারা দিন আগুন জ্বলার কারণে আশপাশের এলাকা স্বাভাবিকের চেয়ে বেশ উত্তপ্ত থাকে। সিএনএনের সাথে আলাপকালে তিনি এসব তথ্য দেন।

এছাড়াও সিএনএনের সেই প্রতিবেদনে উঠে আসে আজারবাইজান দেশটির এমন অজানা আরো গল্প। সেই গল্পে দেশটিকে ‘আগুনের ভূমি’ বলে আখ্যায়িত করা হয়।

কেননা, আজারবাইজানের এমন অনেক জায়গায় এভাবেই দাউদাউ করে জ্বলছে আগুন।

এশিয়া মহাদেশের একটি প্রজাতন্ত্রী রাষ্ট্র আজারবাইজান। কৃষ্ণসাগর ও কাসপিয়ান সাগরের মধ্যবর্তী স্থলযোটক দক্ষিণ ককেশাস অঞ্চলের সবচেয়ে পূর্বের রাষ্ট্র বলা হয় দেশটিকে।

কাসপিয়ান সাগর এলাকার অন্যতম প্রধান জ্বালানি উৎপাদনকারী দেশ আজারবাইজান। আয়তন ও জনসংখ্যার দিক থেকে ককেশীয় অঞ্চলের রাষ্ট্রগুলোর মধ্যে বৃহত্তম দেশ।

তবে আজারবাইজানের পরিচিতি অন্যখানে। মূলত প্রাকৃতিক গ্যাস এবং তেলসমৃদ্ধ দেশটির অনেক স্থানেই মাঝেমাঝে আগুনের দেখা মেলে। চার হাজার বছর ধরেই এমন আগুন জ্বলতে দেখা যায়।

মুষলধারে বৃষ্টি, তুষারঝড় কিংবা বাতাস- কোনোকিছুতেই নেভে না সেই আগুন। আর এই কারণেই সব দেশ থেকে আলাদা এই দেশটি।

এমন আগুনের লেলিহান শিখা দেখতে দূরদূরান্ত থেকে পর্যটকেরা ভিড় জমায় দেশটিতে।