মাধ্যাকর্ষণ শক্তির নতুন নাম হওয়া উচিত ‘নরেন্দ্র মোদি তরঙ্গ’



আলবার্ট আইনস্টাইন ভুল ছিলেন এবং মাধ্যাকর্ষণ শক্তির নতুন নাম হওয়া উচিত ‘নরেন্দ্র মোদি তরঙ্গ’। শুধু তাই নয় রাইট ভ্রাতৃদ্বয়ের আট বছর আগেই শিভাকার বাপুজি টালপাড়ে নামে একজন ভারতীয় বিমান আবিষ্কার করেন ।

শুনতে আজব শোনালেও ভারতে এক বিজ্ঞান সম্মেলনে বক্তারা এমন উদ্ভট সব দাবি করেছেন।

এই সম্মেলনে আগত কোন কোন অংশগ্রহণকারী আইজ্যাক নিউটন এবং আলবার্ট আইনস্টাইনের আবিষ্কারকে ভুল বলে দাবি করেছেন।

এই সম্মেলনে দক্ষিণ ভারতের এক বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান দাবি করেছেন যে হাজার হাজার বছর আগেই ভারতে স্টেম সেল নিয়ে গবেষণা হয়েছে বলে তিনি একটি হিন্দু ধর্মীয় বইতে দেখতে পেয়েছেন।

অন্ধ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য জি. নাগেশ্বর রাও আরও বলেন যে রামায়ণের প্রধান চরিত্র রাবণের ২৪ ধরনের বিমান ছিল এবং বর্তমান শ্রীলংকায় তার অনেকগুলো অবতরণ-ক্ষেত্র ছিল।

এই সম্মেলনে ভাষণ দেয়ার সময় তামিলনাড়ু থেকে আগত আরেকজন বিজ্ঞানী ড. কে.জি. কৃষ্ণান বলেন, আইজ্যাক নিউটন এবং আলবার্ট আইনস্টাইন দুজনেই ভুল ছিলেন এবং মাধ্যাকর্ষণ শক্তির নতুন নাম হওয়া উচিত ‘নরেন্দ্র মোদি তরঙ্গ’।

অবশ্য যার নামে এই তত্ত্ব বদলের দাবি সেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীও কম যান না। ২০১৪ সালে মুম্বাইতে এক হাসপাতালের কর্মচারীদের প্রতি ভাষণ দেয়ার সময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন যে হিন্দু দেবতা গণেশ, যার দেহ মানুষের কিন্তু মাথা হাতির, প্রমাণ করে যে প্রাচীন ভারতে কসমেটিক সার্জারির প্রচলন ছিল।

শুরু থেকেই ভারতীয় বিজ্ঞান বিষয়ক গবেষণায় এমন উদ্ভট সব দাবি উপস্থাপন করা হতো। তবে চলতি বছরের সম্মেলনে এই ধরনের উদ্ভট দাবি মাত্রা ছাড়য়ে গেছে।

এর আগে ২০১৪ সালে মুম্বাইতে এক হাসপাতালের কর্মচারীদের প্রতি ভাষণ দেয়ার সময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন যে হিন্দু দেবতা গণেশ, যার দেহ মানুষের কিন্তু মাথা হাতির, প্রমাণ করে যে প্রাচীন ভারতে কসমেটিক সার্জারির প্রচলন ছিল।