ময়মনসিংহে ভুটানের প্রধানমন্ত্রীর দ্বিতীয় বাড়ি



লোটে শেরিং বর্তমানে ভুটানের প্রধানমন্ত্রী। তবে রাষ্ট্রীয় সফরে বাংলাদেশ এসেও তিনি ভুলে যান নি নিজের অতীত। আর তাই ময়মনসিংহকে নিজের দ্বিতীয় বাড়ী হিসেবে সম্বোধন করলেন তিনি।

জানা যায়, লোটে শেরিং ১৯৯১ সালে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে ভর্তি হন। তিনি এমবিবিএস কোর্স শেষ করে আরও একটি প্রশিক্ষণ নেন সেখানেই। এরপর ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত তিনি ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে ছিলেন। সেই স্মৃতি থেকেই তিনি ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে আসছেন।

তাই তো বাংলাদেশে এসেই ছুটে গেলেন তার ছাত্রাবস্থায়। যেখানে তার জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সময়গুলো কেটেছে। সেই ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে।

রাষ্ট্রীয় সফরে আসা ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিংয়ের নিরাপত্তায় নেওয়া হয়েছে কড়া ব্যবস্থা। এ ছাড়া ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজে অধ্যয়নকালে লোটে শেরিংয়ের ৭৭ জন সহপাঠীও এই আয়োজনে উপস্থিত ছিলেন।

বক্তব্যর এক পর্যায়ে তিনি বলেন, মনে হচ্ছে আমি আমার দ্বিতীয় বাড়িতে এসেছি।

এ সময় তিনি ময়মনসিংহে থাকাকালীন তার অনেক ঘটনার কথাও উল্লেখ করেন।