২৫ বছরের সংসার ভেঙে ৩৮ বিলিয়ন পাচ্ছেন তিনি



পঁচিশ বছর একে অপরের পাশাপাশি থেকেছেন। সেই সংসারে এখন ভাঙ্গনের সুর। আর এই ভাঙ্গনের রফা হচ্ছে ৩৮৩০ কোটি মার্কিন ডলারে।

বলছিলাম জেফ বেজোস ও ম্যাকেঞ্জি বেজোসের কথা।

চলতি বছরের এপ্রিল মাসে ই-কমার্স জায়ান্ট মার্কিন প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে বলা হয়, আদালত বিবাহ বিচ্ছেদের অনুমতি দিলে ম্যাকেঞ্জি বেজোসের নামে চার শতাংশ বা এক কোটি ৯৭ লাখ শেয়ার নিবন্ধন করা হবে।

অবশেষে বিবাহ বিচ্ছেদের জন্য আদালতের অনুমতি পেয়েছেন অ্যামাজন প্রধান নির্বাহী জেফ বেজোস। চুক্তি অনুযায়ী অ্যামাজনের ৩৮৩০ কোটি মার্কিন ডলার মূল্যের শেয়ার পাবেন তার স্ত্রী ম্যাকেঞ্জি বেজোস।

ব্লুমবার্গের প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রতিষ্ঠানের ১২ শতাংশ বা ১১৪৮০ কোটি মার্কিন ডলার মূল্যের শেয়ার নিয়ে এখনও বিশ্বের সবচেয়ে ধনী ব্যক্তি বেজোস। ম্যাকেঞ্জি বেজোস বলেন, বেজোসকে তার শেয়ারের ভোটিং ক্ষমতা দেবেন তিনি।

‘গিভিং প্লেজ’ নামের দাতব্য সংস্থায় যোগ দিতে মে মাসে নিজের শেয়ারের অর্ধেক অনুদান দেওয়ার অঙ্গীকার করেছেন ম্যাকেঞ্জি। ২০১০ সালে এই সংস্থাটি চালু করেন বিলিয়নিয়ার ওয়ারেন বাফেট এবং মাইক্রোসফট সহ-প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস।

এর আগে জানুয়ারিতে এক যৌথ টুইট বিবৃতিতে নিজেদের বিবাহ বিচ্ছেদের ঘোষণা দেন এই দম্পতি। এতে অনেকের মনে শঙ্কা দেখা গেছে জেফ বেজোসের ভোটিং ক্ষমতা কমবে বা তিনি এবং ম্যাকেঞ্জি বড় পদগুলোতে বসবেন।