‘দ্যা বোট’ – এর কাজ শুরু হবে শীতে



পূর্বাচলে তৈরি হবে বাংলাদেশের সব থেকে বড় ক্রিকেট স্টেডিয়াম। শেখ হাসিনা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম – দ্যা বোট নামে স্টেডিয়ামটির কাজ শুরু হবে আসছে শীতে। এমনটিই জানিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও গ্রাউন্ডস কমিটির চেয়ারম্যান মাহবুব আনাম।

সরকারের কাছ থেকে নামমাত্র ১০ লাখ টাকা মূল্যে ৩৭.৪৯ একর জমি পেয়েছে বিসিবি। নৌকার আদলে তৈরি হবে স্টেডিয়ামটি। নীল নকশা প্রস্তুত। এবার কাজে ঝাঁপিয়ে পড়া।

স্টেডিয়ামের সৌন্দর্যে বিশ্ববাসীকে চমকে দিতে চাই বিসিবি। সেই কথাই জানিয়েছেন মাহবুব আনাম। তিনি বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য এমন একটি স্টেডিয়াম তৈরি করা, যা এ অঞ্চল তো বটেই সারা ক্রিকেটবিশ্বেই হবে বলার মতো।’

কাজ শুরুর প্রাথমিক পরিকল্পনা ঠিক করা হয়ে গেছে বলে জানিয়েছেন তিনি, ‘এ মাসের মধ্যেই আমরা মাঠের দখল বুঝে নেব। এরপর সাইট অফিস তৈরি থেকে কাজে গতি আসবে। আসছে শীতে স্টেডিয়াম তৈরির কাজ দৃশ্যমান হবে। আশা করি দুই বছরের মধ্যে স্টেডিয়াম নির্মাণ শেষ হবে।’

বিসিবির প্রধান কার্যালয় এখন হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে। বিসিবির চিন্তায় পূর্বাচলের নতুন স্টেডিয়ামকে হোম অব ক্রিকেটের স্বীকৃতি দেওয়া। তবে কি নতুন জায়গায় স্থানান্তরিত হবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের কার্যালয়?

এমন প্রশ্নের জবাবে মাহবুব আনাম বলেন, ‘এ ব্যাপারে ক্রিকেট বোর্ড পরে সিদ্ধান্ত নেবে। এখন বলার উপায় নেই। আর এটা এমন একটা প্রতিষ্ঠান যে খেলার মাঠের প্রয়োজনীয়তা এর কখনোই ফুরাবে না। এটা (মিরপুর) একটা আন্তর্জাতিক মাঠ। এর রক্ষণাবেক্ষণও সেভাবে হবে।’