অস্ট্রেলিয়ার স্পিনে ধুঁকছে বাংলাদেশ




অস্ট্রেলিয়ার স্পিনে যেন নাজেহাল অবস্থা বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ে। আরো নির্দিষ্ট করে বললে নাথান লায়নের স্পিনে অসহায় টিম বাংলাদেশ। প্রথম ইনিংসে ৭ উইকেট নিয়েছিলেন এই অজি স্পিনার। দ্বিতীয় ইনিংসের শুরুতে আবারও ঘূর্ণিতে পুরো ধসিয়ে দিয়েছেন বাংলাদেশের টপ অর্ডার। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্ৰহ ৬ উইকেট হারিয়ে ১০৯ রান। লায়ন নিয়েছেন ৩ উইকেট।
৩৭৭ রানে ৯ উইকেট নিয়ে চতুর্থ দিন শুরু করে অস্ট্রেলিয়ার অপরাজিত দুই ব্যাটসম্যান স্টিভেন ও’কিফ ও নাথান লায়ন। দিনের দ্বিতীয় ওভারেই মুস্তাফিজের বলে উইকেটের পিছনে মুশফিকুর রহিমের হাতে ক্যাচ দিলে শেষ হয় অস্ট্রেলিয়ার প্রথম ইনিংস। মুস্তাফিজ নেন ৪ উইকেট।
৭২ রানে পিছিয়ে থেকে বাংলাদেশের দ্বিতীয় ইনিংসের গোড়াপত্তন করেন তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকার। দলীয় ১১ রানে ৯ রান প্যাট কামিন্সের বলে আউট হন সৌম্য সরকার।
এরপরই শুরু হয় নাথান লায়ন জাদু। স্পিন, টার্ন এবং বাউন্সে দিশেহারা হতে থাকে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানগুলো। একে একে তুলে নেন তামিম ইকবাল ১২, ইমরুল কায়েস ১৫ ও সাকিব আল হাসান ২ এর উইকেট। ও’কিফের শিকার হন ব্যাটিং ওর্ডারে এগিয়ে আসা নাসির হোসেন।
৪৩ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়া দলকে টেনে তুলছে অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম ও সাব্বির রহমান। লায়ন এবং ও’কিফের স্পিনের বিরুদ্ধে লড়ছে তারা। তাদের অবিচ্ছেদ্য ৪০ রানের জুটিতে ৮৩ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে লাঞ্চ বিরতিতে গেছে বাংলাদেশ। মুশফিক ১৬ ও সাব্বির ২০ রানে অপরাজিত আছেন।
সংক্ষিপ্ত স্কোর : (চতুর্থ দিন, লাঞ্চ বিরতি)
বাংলাদেশ ১ম ইনিংস : ৩০৫/১০
(তামিম ৯, সৌম্য ৩৩, ইমরুল ৪, মমিনুল ৩১, সাকিব ২৪, মুশফিক ৬৮, সাব্বির ৬৬, নাসির ৪৫, মিরাজ ১১, তাইজুল ৯, মুস্তাফিজ ০*, লায়ন ৭/৯৪, এগার ২/৫২)
অস্ট্রেলিয়া ১ম ইনিংস : ২২৫/২
(রেনশ ৪, ওয়ার্নার ১২৩, স্মিথ ৫৮, হ্যান্ডসকম্ব ৮২, মিক্সওয়েল ৩৮, কার্টরাইট ১৮, ওয়েড ৮, এগার ২২, কামিন্স ৪, ও’কিফ ৮, লায়ন ০, মুস্তাফিজ ৪/৮৪, মিরাজ ৩/৯৩, তাইজুল ১/৭৮, সাকিব ১/৮২)
বাংলাদেশ ২য় ইনিংস : ৮৩/৫
(তামিম ১২, সৌম্য ৯, ইমরুল ১৫, নাসির ৫, সাকিব ২, মুশফিক ১৬*, সাব্বির ২০*, লায়ন ৩/৩০, ও’কিফ ১/৩৩, কামিন্স ১/১৩)